গরমে সুস্থ থাকার দারুন কয়েকটি উপায়

প্রচুর পানি পান করতে হবে গরমে সবথেকে বেশি সমস্যা আমাদের হয়ে থাকে সেটা হল হাইড্রেশন অথবা পানিশূন্যতা অতিরিক্ত পরিমাণে ঘাম বের হওয়ার কারণে শরীর থেকে অতিরিক্ত পরিমাণে পানি বের হয়ে যায় যার কারণে আমাদের শরীরে পানিশূন্যতার সমস্যা দেখা দিয়ে থাকে তাই এই সময় স্বাভাবিক সময়ের থেকে খুব বেশি পরিমাণে পানি পান করা উচিত গরমে আমাদের নিজেদেরকে যদি সুস্থ থাকতে হয় তাহলে আমাদেরকে খুব বেশি পরিমাণ করে পানি খেতে হবে

যতটুকু সম্ভব আপনার এবং আমি সহ অনেকেই রয়েছেন যার স্বার্থ বা কফি অনেক পছন্দ না খেলে চলেনা অথবা কফিতে থাকা কেফিন পরিপাক নালীর অভ্যন্তরে ক্ষতি করে থাকে আমাদের হজমে সমস্যা তৈরি করে থাকে তাই এই গরমে ক্যাফেইন জাতীয় পানীয় এড়িয়ে চলা আমাদের কাজ

আমাদের অনেক মানুষ রয়েছে যারা ডায়েট হয় কারণে সকালে নাস্তা করে না সকালে নাস্তা না করার কারণে শরীরের মধ্যে পুষ্টি নতেবুক থাকেন তারা তারা হয়তো জানেনা শরীরের জন্য সকালের নাস্তা কতটুকু উপকারী সারাদিনের কাজের শক্তি পেয়ে থাকে সকালের নাস্তা থেকে তাই সঠিক খাবার না খাওয়ার কারণে আমাদের শরীরে উষ্ণতা তৈরি হয় যা আমাদের পানিশূন্যতা এবং আমাদের দুর্বলতা আমাদের হার্ট অ্যাটাক অন্যান্য সমস্যা দেখা দিতে পারে তাই সকালের নাস্তা করতে হবে

গরম খাবার কম খেতে হবে গরমের সময় শরীর গরম করে এমন খাবার কম খাওয়ার চেষ্টা করতে হবে আমাদেরকে পালং শাক পিয়াজ রসুন কে ফ্রেন্ড রগুলো শরীর গরম করে থাকে এ সময় এই খাবারগুলো যদি আপনি এড়িয়ে চলতে পারেন তাহলে আপনার শরীরকে ঠাণ্ডা রাখতে পারবেন

পরিশেষে আমি আপনাদের সামনে যে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করবো সেটা হল ড্রাইভর্স অনেকেই নাস্তা হিসেবে এটা খেতে পছন্দ করেন যদিও এটি কাজের শক্তি দিয়ে থাকে খুব তাড়াতাড়ি তবুও গরম কম খাওয়া উচিত াই ডিভোর্স এর পরিবর্তে ভালো তাই আপনি যদি এই গরমের মধ্যে শরীর চাঙ্গা রাখতে চান তাহলে অবশ্যই অবশ্যই আপনি ড্রাইভার এর পরিবর্তে অন্য ফল খেতে পারেন